বিজনেস আইডিয়া

ব্যবসা শুরু করুন মাত্র একটি কম্পিউটার দিয়ে

কিভাবে একটি কম্পিউটার দিয়ে ব্যবসা শুরু করা যায়?

আমরা আজকে আপনাদে জন্য একটি ব্যবসা আইডিয়া নিয়ে আলোচনা করবো কিভাবে একটি কম্পিউটার দিয়ে ব্যবসা শুরু করা যায়। যদিও সারা পৃথিবীতে অধিকাংশ পেশার সাথে এখন কম্পিউটারকে সম্পৃক্ত করা হয়েছে। ব্যবসার কথা বললে কম্পিউটার দিয়ে ছোট বড় মিলেয়ে সহাস্রাধীক ব্যবসা আইডিয়া রয়েছে। যেহেতু, আমরা ছোট ব্যবসা নিয়ে আলোচনা করবো তাই শুধু মাত্র একটি কম্পিউটার ভিত্তিক ব্যবসা সম্পকে বিস্তারিত ভাবে আলোচনা করার চেষ্টা করবো।

কি কি ব্যবসা করা যায়- ঠিকঠাক ভাবে বলা অসম্ভব যে, একটি কম্পিউটার দেয় কি কি ব্যবসা করা যায় তবে আমাদের পরিবেশে কিছু কাজের চাহিদা খুব বেশি তাই আজ ঐ সকল বিষয় থেকে একটি আমরা নির্বাচন করবো। ছোট কাজের মধ্যে রয়েছে- কম্পিউটার কম্পোজ ও অনলাইন সেবা, ফটো স্টুডিও, সাউন্ড রেকডিং, ভিডিও প্রোগাম ও এডিটিং, ফ্রিল্যান্সিং, ব্লোগ রাইটিং ইত্যাদি। আমরা প্রত্যেকটি বিষয় নিয়ে আলাধা আলাধা ভাবে পোষ্ট দেয়ার চেষ্টা করবো ইন্স আল্লাহ্।

আজকে আপনাদের জন্য যা যা থাকছে-

* কিভাবে একটি কম্পিউটার দিয়ে ব্যবসা শুরু করা যায়?
* কম্পিউটার কম্পোজ ও অনলাইন সেবা কি এবং কিভাবে করবো?
* কম্পিউটার ব্যবসা শুরু করতে কি কি জিনিস প্রয়োজন?
* কত টাকায় কম্পিউটার ব্যবসা শুরু করা যায়?
* কম্পিউটার ব্যবসা প্রতি মাসে কত টাকা আয় করা যায়?

কিভাবে একটি কম্পিউটার দিয়ে ব্যবসা শুরু করা যায়?

বর্তমানে আমরা কম্পিউটার নির্ভর সমাজে বসবাস করছি। প্রতি দিনই কারোনা কারো কাজে কম্পিউটার ব্যবহার করতে হচ্ছে। আমাদের দেশে এখন প্রত্যেক ঘরে কম্পিউটার পৌছায়নি আর পৌছালেও তা দিয়ে কোন কাজ সম্পূর্ণ রূপে সম্পন্ন করা সম্ভব না। যেমন ধরেন আপনার ঘরে কম্পিউটার বা একটি ল্যাপটপ আছে, আপনার কিছু কাজগ কম্পোজ করা প্রয়োজন, ঘরে বসে সব কিছু করলেন কিন্তু প্রিন্ট করতে পারছেননা কারন আপনার ঘরে কম্পিউটার আছে কিন্তু প্রিন্টার নেই। তাই আপনার কাজ শেষ করার জন্য নিকট বর্তি যে কোন কম্পিউটার কম্পোজের দোকানে যেতে হবে। আর আপনি এটাকেই কাজে লাগিয়ে নিজের ব্যবসা শুরু করতে পারেন।

কম্পিউটার কম্পোজ ও অনলাইন সেবা কি এবং কিভাবে করবো?

আজ আপনাদের জন্য নির্বাচন করেছি কম্পিউটার কম্পোজ ও অনলাইন সেবার ব্যবসা। তাই এ ব্যাপারে জানা দরকার কম্পিউটার কম্পোজ ও অনলাইন সেবা কি এবং কিভাবে করবো? দেশের যে জায়গায়ই আপনার অবস্থান হোকনাকেন আশে পাশের মানুষের প্রতিনিয়তই বিভিন্ন লেখা কম্পিউটারে কম্পোজ করতে হয় যেমন, বিভিন্ন অফিসের বিভিন্ন নথি, স্কুল কলেজের বিভিন্ন কাগজপত্র চিঠি, বিভিন্ন অফিরেস জন্য আবেদন পত্র তৈরী, চাকুরীর জন্য আবেদন পত্র লেখা ও জীবন বৃত্তান্ত বা সিভি তৈরী ইত্যাদি। এরকম হাজারো কাজ মানুষের প্রতি নিয়ত প্রয়োজন হয় তাই আপনি এগুলো লেখার দায়িত্ব নিতে পারেন এবং এটি হবে আপনার ব্যবসা।

এখন বলি অনলাইন সেবার ব্যাপারে। আমাদের দেশে অনেক কাজই এখন অনলাইন ভিত্তিক হয়ে গেছে, যেমন- চাকুরীর আবেদন, স্কুল কলেজে ভর্তি, স্কুল কলেজের ফলাফল প্রকাশ, ইমেইল সার্ভিস, সরকারি বেসরকারি অফিসের প্রজ্ঞাপন বিজ্ঞাপন ইত্যাদি বের করে দেয়া, বাস, ট্রেন বা বিমানের টিকেট কাটা ইত্যাদিসহ হাজারো কাজ অনলাইনের মাধ্যমে করে দেয়া সম্ভব। আর এ সকল কাজকে বলা হয় অনলাইন সবা।

কম্পিউটার ব্যবসা শুরু করতে কি কি জিনিস প্রয়োজন?

এ ব্যবসা শুরু করতে যে সকল জিনিস বা মালামাল প্রয়োজন সে বিষয়ে বলার পূর্বে বলে রাখা ভালো আপনাকে যা জানতে হবে। সর্ব প্রথম আপনাকে কম্পিউটার অপারেট করতে জানতে হবে যাতে আপনি আপনার কম্পিউটারটি সঠিকা ভাবে পরিচালনা করতে পারেন। অফিস প্রোগ্রাম অবশ্যই জানতে হবে, কারন- আজকের ব্যবসার সথে অফিস প্রোগ্রাম পূঙ্খানুপুঙ্খ ভাবে জড়িত। লেখা লেখি করাসহ হিসাব নিকাশ করার জন্য অফিস প্রোগ্রাম জানাটা অত্যান্ত জরুরী। আপনাকে অনলাইনে বা ওয়েব সাইটে ভ্রমন করা জানতে হবে, আবেদন কিভাবে করতে হয়, কিভাবে ফাইল আপলোড বা ডাউনলোড করতে হয়, মেইল কিভাবে পাঠাতে বা রিসিভ করতে হয় এগুলো শিখে নিতে হবে। তা না হলে আপনি কাজগুলো সঠিক ভাবে করতে পারবেনা।

আর এ কাজগুলো আপনার নিকটবর্তী কম্পিউটার প্রশিক্ষণ কেন্দ্র থেকে শিখতে পারেন অথবা প্রয়োজন অনুযায়ী ইউটিউব টিউটোরিয়াল দেখে শিখে নিতে পারেন। তবে আপনাদের জন্য আমার পরামর্শ থাকবে কারিগরি শিক্ষা বোর্ড অনুমদিত যে কোন ভালো একটি ট্রেনিং সেন্টারে ৬ মাসের অফিস প্রোগ্রাম কোর্সটি শেষ করবেন। এটি আপনার কাজকে সঠিক ভাবে জানতে খুবই কার্যকরী ভূমিকা পালন করবে।

এখন আসি কি কি জিনিস আবশ্যক এবং কত টাকা লাগতে পারে-

প্রয়োজনীয় মালামালআনুমানিক মূল্য
কম্পিউটার (পূর্ণাঙ্গ)১৫০০০ – ২৫০০০
প্রিন্টার৫০০০ – ১৫০০০
ইন্টারনেট মোডেম/ রাউটার১৫০০ – ৩০০০
অন্যান্য মালামাল৫০০০
মোট২৬৫০০ – ৪৮০০০
কম্পিউটার কম্পোজ ও অনলাইন বিজনেসের জন্য প্রয়োজনীয় মালামাল আনুমানিক মূল্য

কম্পিউটার ব্যবসা প্রতি মাসে কত টাকা আয় করা যায়?

এটি একটি অতি সাধারণ ও স্বাভাবিক প্রশ্ন যে, কম্পিউটার ব্যবসা প্রতি মাসে কত টাকা আয় করা যায়? এর জবাবে বলবো এটি সম্পূণই আপনার উপর নির্ভর করে কত টাকা আয় করবেন। আপনার কাজের গতি ও অভিজ্ঞতা কতটুকু তার উপর নির্ভর করবে, আপনার ব্যবসা প্রতিষ্ঠানের কাছাকাছি কি পরিমাণ গ্রাহক রয়েছে তার উপর নির্ভর করে, আসে পাসে কি পরিমাণ ব্যবসা প্রতিষ্ঠান রয়েছে তার উপর নির্ভর করে, আপনি গ্রাহকের সাথে কি আচরণ করেন তার উপর নির্ভর করে। তবে আপনার ব্যবসা প্রতিষ্ঠানের কাছাকাছি অন্যের ব্যবসা প্রতিষ্ঠান থাকলে কোন সমস্যা হয়না বরং লাভের পরিমাণ বেড়ে যায়। বেশি দোকান থাকলে কাজের পরিমাণও বেড়ে যায়।

ব্যবসা শুরু করার পূর্বে অবশ্যই কম পুজিতে স্মার্ট ব্যবসা শুরু করার সঠিক ধারণা পোষ্টটি পড়ে নেয়ার অনুরোধ রইলো। এটি আপনাকে ব্যবসা প্রতিষ্ঠান গড়ে তোলার জন্য সঠিক নির্দেশনা দেবে। আপনার ব্যবসা সম্পর্কিত অনেক প্রশ্নের জবাব আপনি এ পোষ্টটি পড়লে জানতে পারবেন।

Spread the love
  •  
  •  
  • 1
  •  
  • 1
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
    2
    Shares

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *